বুধবার ১৩ নভেম্বর ২০১৯



বেঙ্গালুরুতে বাংলাভাষীদের কাজে না নেওয়ার ফরমান


বাংলা নিউজ ব্যাংক :
08.11.2019

নিউজ ডেস্ক: জাতীয় নাগরিক নিবন্ধনের (এনআরসি) কোপে পড়েছে এবার ভারতের দক্ষিণের রাজ্য কর্ণাটক। এই রাজ্যের রাজধানী বেঙ্গালুরু শহর থেকে ‘বাংলাদেশিদের’ তাড়াতে পুলিশ শুরু করেছে অভিযান। একই সঙ্গে বাংলাভাষী মানুষের কাজে না নিতে নির্দেশও জারি করা হয়েছে।

তবে বাংলাদেশি ধরার নামে আটক হচ্ছে পশ্চিমবঙ্গের বাংলাভাষীরাও। গত রোববার বেঙ্গালুরু শহর থেকে আটক করা হয় ৬০ জন বাংলাভাষীকে। পুলিশের দাবি, তাঁরা সবাই বাংলাদেশি। তাঁদের কাছে ভারতীয় নাগরিকত্বের প্রমাণ ছিল না। কিছু ভুয়া কাগজপত্র পাওয়া যায়। পুলিশ এই বাংলাভাষীদের কারাগারে না রেখে তাঁদের দ্রুত বাংলাদেশে ফেরত পাঠানোর উদ্যোগ নিয়েছে। এই ৬০ জনের মধ্যে ২২ জন পুরুষ, ২৯ জন নারী ও ৯টি শিশু রয়েছে।

বেঙ্গালুরুর আটক হওয়া বাংলাভাষীরা দাবি করেছেন, তাঁরা বাংলাদেশের নন, পশ্চিমবঙ্গের বাসিন্দা। এ নিয়ে একটি জটিলতার সৃষ্টি হয়েছে।

ভারতের এই কর্ণাটক রাজ্যের প্রধান ভাষা কন্নড়। বেঙ্গালুরু শহরে চতুর্থ শ্রেণির কর্মী হিসেবে বহু বাংলাভাষী নিয়োজিত বিভিন্ন বেসরকারি আবাসনে। পরিচারিকা, রান্নাবান্না, নিরাপত্তাকর্মী, নার্স, হোটেল কর্মীসহ শহরের বিভিন্ন প্রকল্পে শ্রমিক হিসেবে দীর্ঘদিন ধরে কাজ করে আসছেন বাংলাভাষীরা ।

সম্প্রতি বেঙ্গালুরু শহরে ‘বাংলাদেশি’ তাড়ানোর অভিযান শুরু হওয়ার পর শহরের বিভিন্ন আবাসনের কর্মকর্তাদের চিঠি দিয়ে জানানো হয়েছে তাঁরা যেন আবাসনের কোনো কাজে বাংলাদেশিদের নিয়োগ না করেন। এর ফলে পশ্চিমবঙ্গ থেকে আসা বহু বাংলাভাষীর মনে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে।

বেঙ্গালুরুতে বাংলাভাষীদের নিয়োগ দেয় বেশ কয়েকটি বেসরকারি নিয়োগ এজেন্সি। সেই সব এজেন্সিকে গত সোমবার এই মর্মে চিঠি দেওয়া হয়েছে যে তারা যেন বাংলাভাষীদের নিয়োগ না করেন।

এ বিষয়ে বেঙ্গালুরু অ্যাপার্টমেন্ট ফেডারেশনের প্রেসিডেন্ট মুরলীধর রাও গতকাল মঙ্গলবার বলেন, আমরা ফেডারেশনের তরফ থেকে কোনো নির্দেশ দিইনি আবাসন কর্তৃপক্ষকে। কোনো কোনো আবাসন কর্তৃপক্ষ নিজেরাই এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি