বুধবার ৫ অগাস্ট ২০২০



সন্ত্রাসী রাজনীতির প্রায়শ্চিত্ত করছে বিএনপি


বাংলা নিউজ ব্যাংক :
30.07.2020

নিউজ ডেস্ক: দেশের জনগণ অনেক সচেতন, তাদের ধোঁকা দেয়ার কোনো সুযোগ নেই। কোন রাজনৈতিক দল কী চায়, কারা জ্বালাও-পোড়াও করে মানুষ হত্যা করে ক্ষমতায় যেতে চেয়েছিলো তা বুঝতে পেরেছে।

জনগণের ওপর আস্থা নেই বলেই বিএনপি পেট্রোল সন্ত্রাস করে ক্ষমতায় যেতে চেয়েছিলো। এ কারণে জনসমর্থন হারিয়েছে দলটি। তারা এখন সেই আগুন সন্ত্রাসের প্রায়শ্চিত্ত করছে বলে মনে করেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা।

তারা বলছেন, ২০১৫ সালে লাগাতার ৯২ দিন অবরোধের নামে জামায়াত-বিএনপির ক্যাডার বাহিনী জ্বালাও-পোড়াও কর্মকাণ্ড চালায় সারাদেশে। এতে নারীসহ দুই শতাধিক নিরীহ মানুষ নিহত এবং আরো কয়েকশ’ মানুষ আহত হয়। সেই ইতিহাস মানুষ এখনো ভুলতে পারেনি।

বিএনপি ক্ষমতায় থাকাকালীন হাওয়া ভবন তৈরি করে লুটপাট করেছিলো। তারা দেশেকে দুর্নীতিতে চ্যাম্পিয়ন করেছিলো। এভাবে তারা দেশের কতটা ক্ষতি করেছিলো তার বড় প্রমাণ পাওয়া যায় ২০০৮ সালের ৩ নভেম্বর ঢাকার মার্কিন রাষ্ট্রদূতের ওয়াশিংটনে পাঠানো একটি বার্তায়। ওই বার্তায় তারেক রহমানের বিরুদ্ধে লাগামহীন ঘুষ, দুর্নীতি, সন্ত্রাস ও ক্ষমতার যথেচ্ছা অপব্যবহারের কথা উল্লেখ ছিলো। পরবর্তীতে উইকিলিকসের মাধ্যমে বার্তাটি ফাঁস হয়, যার বিবরণ ২০১৪ সালের ২২ ফেব্রুয়ারি দেশের কয়েকটি পত্রিকায়ও প্রকাশিত হয়।

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দীন নাছিম বলেন, একটি ষড়যন্ত্রকারী মহল শেখ হাসিনা সরকারের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করে যাচ্ছে। তারা অপপ্রচারে লিপ্ত হয়ে জনগণের মধ্যে বিভ্রান্তি তৈরি করছে। এই দেশবিরোধী ষড়যন্ত্রকারীদের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে হবে।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি