এবার কংগ্রেসের মৌসম বেনজির যোগ দিলেন তৃণমূল কংগ্রেসে

নিউজ ডেস্ক: ভারতের পশ্চিমবঙ্গে ‘নিষ্প্রভ’ কংগ্রেসের ‘শেষ দুর্গ’ হিসেবে পরিচিত মালদহ জেলার দলীয় সাংসদ মৌসম বেনজির যোগ দিলেন তৃণমূল কংগ্রেসে। রাজ্যে বিজেপি ঠেকাতেই ‘দিদি’ বা পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বের প্রতি আস্থা রেখে এই যোগদান, জানিয়েছেন মৌসম। মালদহ কংগ্রেসের প্রাণপুরুষ হিসেবে পরিচিত প্রয়াত বরকত গণি খান চৌধুরীর ভাগনি মৌসম।

পশ্চিমবঙ্গের কংগ্রেসের ঘাঁটি হিসেবে দীর্ঘদিন ধরে পরিচিত হয়ে আসছে মুর্শিদাবাদ এবং মালদহ জেলা। এই জেলায় কংগ্রেসকে দাঁড় করিয়েছেন বরকত গণি খান চৌধুরী। কংগ্রেসও চলেছে গণিখানের আদর্শ আর হাত ধরে। গত ২০১৪ সালের সর্বশেষ সাংসদ নির্বাচনেও বিজেপি এবং তৃণমূলের ঝড়ের মুখেও এই জেলার দুটি আসনেই জিতেছিল কংগ্রেস। সাংসদ হয়েছিলেন গনিখান পরিবারের তরুণ নেত্রী মৌসুম বেনজির নূর এবং আবু হাসেম খান চৌধুরী ডালু।
সেই কংগ্রেস শিবিরে এবার এসে পড়েছে তৃণমূলের ঝাপটা। ঝাপটায় প্রথম উড়ে গেল কংগ্রেসের সাংসদ মৌসুম বেনজির নূর। এই সাংসদ সোমবার পশ্চিমবঙ্গের সচিবালয় নবান্নে গিয়ে মমতার সঙ্গে দেখা করে যোগ দেন তৃণমূলে। মমতাও এদিন আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা দেন মৌসুম এবার তৃণমূলের টিকিটে লড়বেন মালদহ উত্তর কেন্দ্র থেকে। মৌসুম আবার ছিলেন মালদহ কংগ্রেসের জেলা সভাপতিও। মৌসুম নূর তৃণমূলে যোগদান করে বলেছেন, রাজ্যবাসী চায় মমতাকে। মমতাই বিজেপির বিরুদ্ধে লড়াইয়ের মুখ। তিনিই পারেন রাজ্যবাসীর উন্নয়ন করতে। তৃণমূলে যোগদানের সময় উপস্থিত ছিলেন রাজ্যের পরিবহন মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী সহ তৃণমূলের নেতারা।

তৃণমূল আগেই ঘোষণা দিয়েছে আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে তাদের রাজ্যের ৪২টি লোকসভা আসনই চাই। অর্থাৎ এই রাজ্যে শূন্য হাতে ফিরতে হবে বিরোধী সব দলকে। যদিও ২০১৪ সালের লোকসভা নির্বাচনে তৃণমূল পেয়েছিল ৩৪টি আসন। আর কংগ্রেস ৪টি, বাম দল সিপিএম ২টি এবং বিজেপি ২টি আসন। এবার তৃণমূল ঘোষণা করেছে, এবার ৪২টি আসনেই জিতবে তৃণমূল।

যদিও সাম্প্রতিক ইন্ডিয়া টুডের এক সমীক্ষায় বলা হয়েছে, এই রাজ্যে বাম দল এবং কংগ্রেস শিবির খারাপ করলেও বিজেপি পেতে পারে ৭টি আসন। কংগ্রেস একটি আসন। আর বাম দল নাও পেতে পারে আসন।
মৌসুমের যোগদানের পরপরই কংগ্রেসের রাজ্য সভাপতি সোমেন মিত্র বলেছেন, এই ঘটনায় কংগ্রেসের তেমন ক্ষতি হবে না। তিনি পাশাপাশি এই মালদহ উত্তরের প্রার্থীর নাম ঘোষণা করে বলেছেন, এই কেন্দ্রে কংগ্রেস প্রার্থী হচ্ছেন ইশা খান চৌধুরী। ইশা খান এখন দক্ষিণ মালদার সুজাপুর কেন্দ্রের কংগ্রেস বিধায়ক। সম্পর্কে মৌসুমের মামাতো দাদা। তিনি আবার মালদহ দক্ষিণ’এর কংগ্রেস সাংসদ আবু হাসেম খান চৌধুরীর ছেলে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন

বাংলাদেশে জঙ্গি ছিনতাই: তারেককে নিয়ে এফবিআইয়ের সতর্কতা

নিউজ ডেস্ক : ঢাকার আদালত এলাকায় ‘পুলিশকে স্প্রে মেরে’ ছিনতাই করা হয়েছে জাগৃতি প্রকাশনীর প্রকাশক ফয়সল আরেফিন দীপন এবং লেখক অভিজিৎ রায় হত্যায় মৃতুদণ্ডপ্রাপ্ত দুই জঙ্গিকে। রোববার ২০ নভেম্বর দুপুরে পুরান ঢাকার আদালত পাড়ায় এ ঘটনার পর রেড অ্যালার্ট জারি করে ইতিমধ্যে দুই আসামিকে ধরিয়ে দিতে পুরস্কার ঘোষণা করা হয়েছে। এ ঘটনা ঘটার পর থেকে […]

বিস্তারিত

গোপন খবর ফাঁস! জো বাইডেনের ছেলেকে পরামর্শক হিসেবে নিয়োগ দিচ্ছে তারেক রহমান

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে লবিং করতে নতুন পদক্ষেপ নিয়েছে বাংলাদেশ জাতীয়বাদী দল বিএনপি। বর্তমান মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের প্রশাসনকে হাত করতে বাইডেনেরই এক পুত্রের সঙ্গে বিপুল অর্থের বিনিময়ে নিয়োগ দিতে চাচ্ছে বিএনপির দণ্ডপ্রাপ্ত পলাতক ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান। উইকলি ব্লিটজে প্রকাশিত এক প্রতিবেদন থেকে জানা যায়, বাইডেন প্রশাসনকে বাগে আনতে হান্টার বাইডেনের সঙ্গে চুক্তি করছে বিএনপি। […]

বিস্তারিত

পিনাকী ভট্টাচার্যের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা

বিদেশে অবস্থানরত লেখক ও অনলাইন অ্যাকটিভিস্ট পিনাকী ভট্টাচার্যের বিরুদ্ধে ঢাকায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা হয়েছে। ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) কাউন্টার টেররিজম অ্যান্ড ট্রান্স ন্যাশনাল ক্রাইম (সিটিটিসি) বিভাগ গত ১৫ অক্টোবর রাজধানীর রমনা থানায় তাঁর বিরুদ্ধে মামলা করে। মামলায় পিনাকী ভট্টাচার্যসহ তিনজনের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করার চক্রান্তে জড়িত থাকার অভিযোগ আনা হয়। এ মামলায় পিনাকীর […]

বিস্তারিত