যুক্তরাষ্ট্র হামলা করলে তেল আবিবকে মাটিতে মিশিয়ে দেবো: ইরান

ইরানের সেনাবাহিনীর এক উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা হুঁশিয়ারি জানিয়ে বলেছেন, যদি যুক্তরাষ্ট্র ইসলামি প্রজাতন্ত্রে হামলা চালায় তাহলে ইরান ইসরায়েলি দুটি শহরকে মাটিতে মিশিয়ে দেবে। সোমবার ইরানের ইসলামি বিপ্লবের ৪০তম বিজয় দিবসের অনুষ্ঠানে দেওয়া ভাষণে এই হুঁশিয়ারি জানিয়েছেন দেশটির সেনাবাহিনীর রাজনৈতিক বিষয়ক উপ-প্রধান ইয়াদোল্লাহ জাভানি। ইরানের রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা আইআরএনএকে উদ্ধৃত করে রয়টার্স এ খবর জানিয়েছে।

১৯৭৯ সালের ১১ ফেব্রুয়ারি ইরানের যুক্তরাষ্ট্র সমর্থিত তৎকালীন শাসক শাহ মোহাম্মদ রেজা পাহলভি পদত্যাগে বাধ্য হলে আয়াতুল্লাহ রুহুল্লাহ খোমেনি ইরানকে ইসলামি প্রজাতন্ত্র ঘোষণা করেন। দিনটিকে ইসলামি বিপ্লবের বিজয় দিবস হিসেবে পালন করা হয়। গত বছর মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প পারমাণবিক চুক্তি থেকে বেরিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দেওয়ার পর  ইরান-যুক্তরাষ্ট্র উত্তেজনার মধ্যেই এবারের বিজয় দিবস উদযাপিত হচ্ছে।

যুক্তরাষ্ট্র ও আরববিশ্ব ইসলামি বিপ্লবের পর থেকেই সন্দেহের চোখে দেখে। তাদের আশঙ্কা, খোমেনির বিপ্লবী চিন্তাধারা মধ্যপ্রাচ্যে জঙ্গিদের অনুপ্রাণিত করবে। বর্তমানে যুক্তরাষ্ট্র ও তার আরব মিত্ররা মধ্যপ্রাচ্যে ইরানের প্রভাব খর্ব করার চেষ্টা করছে। ইরাক, সিরিয়া, লেবানন ও ইয়েমেনে উভয় পক্ষ ছায়াযুদ্ধে লড়ছে।

বিজয় দিবসের অনুষ্ঠানে দেওয়া ভাষণে ইয়াদোল্লাহ জাভানি বলেন, এতো রক্ষণাত্মক ও সামরিক সরঞ্জাম থাকার পরও যুক্তরাষ্ট্রের সাহস নেই আমাদের লক্ষ্য করে একটি গুলি ছোড়ার। কিন্তু তার যদি কখনও আমাদের ওপর হামলা চালায় তাহলে আমরা তেল আবিব ও হাইফাকে মাটির সঙ্গে মিশিয়ে দেব।

বিপ্লবের ৪০তম বার্ষিকীতে আজাদি স্কয়ারে দেওয়া ভাষণে ইরানের প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি বলেন, গোটা বিশ্বই দেখেছে ইরানের সদিচ্ছা ও সহযোগিতায় সিরিয়া, ইরাক ও লেবাননের জনগণ বিজয় অর্জন করেছে এবং ফিলিস্তিন ও ইয়েমেনের জনগণ আগ্রাসী ও দখলদারদের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ চালিয়ে যাচ্ছে।

ইরানকে বিচ্ছিন্ন করার মার্কিন উদ্যোগ ব্যর্থ হলে জানিয়েছে রুহানি বলেন, যুক্তরাষ্ট্রকে জয়ী হতে আমরা দেব না। ইরানের জনগণ কিছু অর্থনৈতিক পড়েছে কিন্তু আমরা একে অপরকে সহযোগিতার মাধ্যমে এই সংকট কাটিয়ে উঠতে পারব।

রুহানি আরও বলেছেন, ক্ষেপণাস্ত্রসহ প্রতিরক্ষা সরঞ্জাম তৈরির জন্য তেহরান কারো অনুমতি নেয় না এবং ভবিষ্যতেও নেবে না।

ইসলামি বিপ্লবের ৪০তম বিজয় দিবস উদযাপনে বিভিন্ন শহরের রাস্তায় যোগ দিয়েছে লাখ লাখ ইরানি নাগরিক। ভবিষ্যৎ প্রজন্মের জন্য নতুন ইরান গড়ার স্বপ্ন নিয়ে রাজধানী তেহরানের আজাদি স্কয়ারে জড়ো হয় লাখ লাখ ইরানি। এসব ইরানি নাগরিক জাতীয় পতাকা নাড়িয়ে মার্কিন মতাদর্শের মৃত্যু কামনা করে স্লোগান দেয়। এছাড়া বিপ্লবের বিজয় দিবস উপলক্ষে নিজেদের নির্মিত ক্ষেপণাস্ত্র প্রদর্শনীরও আয়োজন করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন

বাংলাদেশে জঙ্গি ছিনতাই: তারেককে নিয়ে এফবিআইয়ের সতর্কতা

নিউজ ডেস্ক : ঢাকার আদালত এলাকায় ‘পুলিশকে স্প্রে মেরে’ ছিনতাই করা হয়েছে জাগৃতি প্রকাশনীর প্রকাশক ফয়সল আরেফিন দীপন এবং লেখক অভিজিৎ রায় হত্যায় মৃতুদণ্ডপ্রাপ্ত দুই জঙ্গিকে। রোববার ২০ নভেম্বর দুপুরে পুরান ঢাকার আদালত পাড়ায় এ ঘটনার পর রেড অ্যালার্ট জারি করে ইতিমধ্যে দুই আসামিকে ধরিয়ে দিতে পুরস্কার ঘোষণা করা হয়েছে। এ ঘটনা ঘটার পর থেকে […]

বিস্তারিত

গোপন খবর ফাঁস! জো বাইডেনের ছেলেকে পরামর্শক হিসেবে নিয়োগ দিচ্ছে তারেক রহমান

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে লবিং করতে নতুন পদক্ষেপ নিয়েছে বাংলাদেশ জাতীয়বাদী দল বিএনপি। বর্তমান মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের প্রশাসনকে হাত করতে বাইডেনেরই এক পুত্রের সঙ্গে বিপুল অর্থের বিনিময়ে নিয়োগ দিতে চাচ্ছে বিএনপির দণ্ডপ্রাপ্ত পলাতক ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান। উইকলি ব্লিটজে প্রকাশিত এক প্রতিবেদন থেকে জানা যায়, বাইডেন প্রশাসনকে বাগে আনতে হান্টার বাইডেনের সঙ্গে চুক্তি করছে বিএনপি। […]

বিস্তারিত

পিনাকী ভট্টাচার্যের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা

বিদেশে অবস্থানরত লেখক ও অনলাইন অ্যাকটিভিস্ট পিনাকী ভট্টাচার্যের বিরুদ্ধে ঢাকায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা হয়েছে। ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) কাউন্টার টেররিজম অ্যান্ড ট্রান্স ন্যাশনাল ক্রাইম (সিটিটিসি) বিভাগ গত ১৫ অক্টোবর রাজধানীর রমনা থানায় তাঁর বিরুদ্ধে মামলা করে। মামলায় পিনাকী ভট্টাচার্যসহ তিনজনের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করার চক্রান্তে জড়িত থাকার অভিযোগ আনা হয়। এ মামলায় পিনাকীর […]

বিস্তারিত