এবারের বিশ্ব ইজতেমায় চ্যালেঞ্জ একটু বেশি: র‌্যাব

নিউজ ডেস্ক: বিশ্ব ইজতেমায় শান্তি-শৃঙ্খলার কোনো ধরনের ঝুঁকি সৃষ্টি হলে মারাত্মক পরিস্থিতির সৃষ্টি হতে পারে। তাই এবারের বিশ্ব ইজতেমায় চ্যালেঞ্জ একটু বেশি। বৃহস্পতিবার দুপুরে রাজধানলি কারওয়ান বাজারে র‍্যাবের মিডিয়া সেন্টারে বিশ্ব ইজতেমার নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এমন মন্তব্য করেন বাহিনীটির মহাপরিচালক (ডিজি) বেনজীর আহমেদ।

তিনি জানান, বিশ্ব ইজতেমাকে ঘিরে সতর্কাবস্থানে থাকবে র‍্যাব।  ইজতেমা ময়দান ও আশপাশে পোশাক পরিহিতদের থেকে দ্বিগুণ সংখ্যায় থাকবে সাদা পোশাকে র‍্যাবের সদস্যরা।

র‍্যাবের ডিজি বলেন, আগামী ১৫, ১৬, ১৭ ও ১৮ ফেব্রুয়ারি চার দিনব্যাপী বিশ্ব ইজতেমা অনুষ্ঠিত হবে। ইজতেমাকে কেন্দ্র করে গত বছর নানা মত ও ভেদাভেদের সৃষ্টি হয়েছিল। সর্বশেষ সরকারের প্রচেষ্টায় ইজতেমা অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। তাই প্রতিবছর বিশ্ব ইজতেমাকে ঘিরে যে ধরনের নিরাপত্তা ঝুঁকি থাকে, এবার এর সঙ্গে বাড়তি কিছু ঝুঁকি যুক্ত হয়েছে।

র‍্যাব প্রধান বলেন, এবার আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী বেশি সতর্কাবস্থানে থাকবে। তৃতীয় পক্ষ যেন কোনো সুযোগ না নিতে পারে, বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করতে না পারে সেদিকে লক্ষ্য রাখতে হবে। শুধু আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা নয়, আয়োজকদেরও সতর্ক থাকতে হবে।

র‍্যাবের গৃহিত নিরাপত্তা ব্যবস্থা তুলে ধরে তিনি বলেন, ইজতেমা ময়দানের নিরাপত্তায় পোশাক পরিহিতদের থেকে দ্বিগুণ সাদা পোশাকে র‍্যাব সদস্যদের উপস্থিতি থাকবে। প্রত্যেকটা খিত্তা এবং বিদেশি মেহমানদের খিত্তাকে ঘিরে আমরা এবার সাদা পোশাকের আবরণ সৃষ্টি করব। পাশাপাশি প্রতিটি খিত্তায় সিসি টিভি ক্যামেরা থাকবে। আকাশে হেলিকপ্টার, নদীতে বোট ও সড়কে র‍্যাবের জিপ মোটরসাইকেল টহল দেবে।

তিনি জানান, ইজতেমা মাঠে ড্রোন থাকবে। ইলেক্ট্রিক ইক্যুয়েপমেন্ট দিয়ে ময়দান সুইপিং করা হবে এবং ডগ স্কোয়াড প্রস্তুত থাকবে। সার্বক্ষণিক গোয়েন্দা নজরদারি অব্যাহত থাকবে।

দায়িত্বশীলদের ব্যর্থতা বরদাশত করা হবে না:

বেনজীর আহমেদ বলেন, বিশ্ব ইজতেমার নিরাপত্তাকে কেন্দ্র করে তাবলিগ জামাতের নেতৃবৃন্দ ও মুরব্বিসহ দায়িত্বশীলদের ভুল বা কোনো গ্রুপের কোনো ধরনের ভুলে কোনো ধরনের পরিস্থিতি সৃষ্টি হলে তা কোনোভাবেই বরদাশত করা হবে না, এটা কাম্যও নয়।

যেভাবে সরকারের সঙ্গে আলোচনা হয়েছে সেভাবেই ইজতেমা অনুষ্ঠান করতে হবে এবং বয়ান ও আখেরি মোনাজাত সেভাবেই হবে।

এ সময় তিনি তাবলিগ জামাতের মুরব্বিদের উদ্দেশে বলেন, আপনারা যেহেতু আল্লাহর রাহে কাজ করেন তাই বিশ্ব ইজতেমার শান্তি-শৃঙ্খলার পরিবেশ বজায় রাখবেন।

গুজবে কান দেয়া যাবে না:

র‍্যাব প্রধান বলেন, তাবলিগ জামাতের মুরব্বিদের সঙ্গে আমাদের প্রতিনিয়ত যোগাযোগ রয়েছে ও থাকবে; যাতে করে কোনো ধরনের গুজব সৃষ্টি হলে আমরা এটা দ্রুত নিষ্পত্তি করতে পারি। তাবলিগ জামাতের নেতাদের বলবো, কোথাও কোনো তথ্য পেলে সেটি যাচাই না করে শেয়ার করবেন না। আর যাচাই না করতে পারলে আমাদের সঙ্গে শেয়ার করবেন আমরা যাচাই করব। কিন্তু আনভেরিফাইড কোনো গুজব দয়া করে এই বিশাল মহাসমাবেশে ছড়িয়ে দেবেন না।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন

সাবেক মন্ত্রী এ বি এম গোলাম মোস্তফা মারা গেছেন

সাবেক মন্ত্রী, সচিব ও কুমিল্লা-৪ (দেবিদ্বার) আসনের সাবেক সংসদ সদস্য এ বি এম গোলাম মোস্তফা আর নেই। শনিবার (৩ ডিসেম্বর) রাত ৯টায় রাজধানীর একটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি। তার বয়স হয়েছিল ৮৮। তিনি বাধ্যর্কজনিত নানা রোগে ভোগছিলেন। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, এক ছেলে ও এক মেয়েসহ অসংখ্য আত্মীয়-স্বজন এবং গুণাগ্রাহী রেখে গেছেন। গোলাম […]

বিস্তারিত

বিএনপি কার্যালয়ের সামনে রিজভীর কর্মীদের ককটেল বিস্ফোরণ

বিএনপির নয়াপল্টন কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে কয়েকটি ককটেল বিস্ফোরণ করেছে দলটির নেতাকর্মীরা। তবে এতে কেনো হতাহতের ঘটনা ঘটেনি। শনিবার (৩ ডিসেম্বর) সন্ধ্যা সোয়া ৬টার দিকে কার্যালয়ের সামনের সড়কে ডিভাইডারের পাশে এই বিস্ফোরণ ঘটে। এ বিষয়ে পল্টন থানার পরিদর্শক (তদন্ত) সেন্টু মিয়া বলেন, আমরা শুনেছি সন্ধ্যার দিকে পল্টনে বিএনপির কার্যালয়ের সামনে ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। তবে বিএনপি […]

বিস্তারিত

বিভক্ত বিএনপি, কেন্দ্রীয় নেতাদের সামনেই দু’পক্ষের সংঘর্ষ

রাজশাহীর মাদ্রাসা মাঠে বিএনপির গণসমাবেশে কেন্দ্রীয় নেতাদের সামনেই দুই পক্ষের মধ্যে মারামারি ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ সময় প্ল্যাকার্ড ছোড়াছুড়ি করেন উভয়পক্ষের নেতাকর্মীরা। ব্যক্তিগত শো-ডাউনকে কেন্দ্র করে সাবেক সংসদ সদস্য নাদিম মোস্তফার বক্তব্য চলাকালে এ ঘটনা ঘটে। কেন্দ্রীয় নেতারা এ সময় বারবার তাদের নিবৃত্ত করার নির্দেশ দিলেও মারামারি চলতে থাকে। দুই পক্ষই সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। […]

বিস্তারিত