সোমবার ২৪ জানুয়ারী ২০২২



দলীয় প্রার্থীদের শপথ ঠেকাতে সুলতান মনসুরকে বিএনপির ভর্ৎসনা, বিএনপিতে বিশৃঙ্খলার শঙ্কা


বাংলা নিউজ ব্যাংক :
07.03.2019

নিউজ ডেস্ক: জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সিদ্ধান্ত না মেনে সংসদ সদস্য হিসেবে শপথ নিয়ে সুলতান মোহাম্মদ মনসুর ‘রাজনৈতিক ছলনা’ ও ‘অঙ্গীকার ভঙ্গ’ করেছেন বলে মন্তব্য করেছে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী।

বৃহস্পতিবার (৭ মার্চ) সংবাদ সম্মেলনে রুহুল কবির রিজভী এ কথা বলেন। এদিকে রিজভী আহমেদের বক্তব্যে বিএনপির রাজনৈতিক অসহায়ত্ব এবং ঐক্যফ্রন্টে তাদের দুর্বলতা স্পষ্ট হয়েছে বলে মনে করছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা। সুলতান মনসুর গণদাবী মেনে নিয়ে জনরায়কে মূল্যায়ন করায় বিএনপি চাপের মুখে পড়ায় তার সমালোচনা করছে বলেও মনে করছেন তারা।

সুলতান মনসুরের সিদ্ধান্তকে যুগোপযোগী এবং সঠিক বলে দাবি করে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন সাবেক অধ্যাপক ও রাজনৈতিক বিশ্লেষক বলেন, সুলতান মনসুর শপথ নেয়ায় রাজনীতিতে সাধারণ মানুষের আস্থা আরো বৃদ্ধি পাবে। রাজনীতির মূল উদ্দেশ্য জনসেবা, জনগণের মন বুঝে কাজ করা। সুলতান মনসুর তার নির্বাচনী এলাকার মানুষের নার্ভ বুঝে সঠিক সিদ্ধান্তই নিয়েছেন। আমার ধারণা, ড. কামালের পরামর্শ ও গ্রিন সিগন্যাল পেয়েই সুলতান মনসুর এই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। বিএনপির ইস্যুটি নিয়ে ক’দিন হইচই করবে, পরে কিন্তু ঠিকই শান্ত হয়ে যাবে। মাঝখানে মোকাব্বির খানও শপথ নেয়ার সুযোগ পাবেন। আমার মনে হচ্ছে শেষপর্যন্ত মোকাব্বির খানও সুলতান মনসুরের পথেই হাঁটবেন।

তিনি আরো বলেন, সুলতান মনসুরের শপথে বিএনপির ভয়ের কারণ হচ্ছে, মির্জা ফখরুল ছাড়া দলটির জয়ী অন্য ৫ নেতাও সেই পথে হাঁটতে পারে, এমন গুঞ্জনও চাউর হয়েছে। বিএনপির ৫ জন যদি দলের নিষেধ অমান্য করে শপথ নিয়ে ফেলে তবে দলের উপর নেতারা কর্তৃত্ব হারাতে পারে। এমন ভীতি এখন মির্জা ফখরুলদের মনে চেপে বসেছে। সেই ভয়ের অংশ থেকে দলের জয়ী প্রার্থীদের ধরে রাখতেই সমালোচনার খই ফোটাচ্ছেন রিজভীরা। সত্য ও সম্ভাবনাকে কখনোই চেপে রাখা যায় না, সেটি হয়তো রিজভী আহমেদরা ভুলে গেছেন। বাস্তবতাকে এড়িয়ে কোন কিছু হাসিল করা যায় না।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি