মঙ্গলবার ২০ এপ্রিল ২০২১
  • প্রচ্ছদ » Lead 2 » জামায়াতসহ শরিক দলগুলোকে অকার্যকর ভাবছে বিএনপি



জামায়াতসহ শরিক দলগুলোকে অকার্যকর ভাবছে বিএনপি


বাংলা নিউজ ব্যাংক :
03.03.2021

নিউজ ডেস্ক : বিগত ১৪ বছর ধরে আন্দোলন গড়ে তোলার চেষ্টা করেও সফল হয়নি বিএনপি। আর এর সকল দায় বিএনপির সঙ্গে জোটে থাকা সকল শরিক দলের ওপর চাপিয়ে দিতে চাইছে বিএনপির একটি পক্ষ।

দলটির সিনিয়র নেতারা মনে করেন, ২০ দলীয় জোটের উপর অতিরিক্ত নির্ভরতা, জোটের দলগুলোর আন্দোলনে অনীহা, সাংগঠনিক দুর্বলতার কারণে বিএনপি জোটগত রাজনীতিতে ব্যাকফুটে চলে গিয়েছে। তাই রাজনৈতিক স্বকীয়তা ফিরে পাওয়ার জন্য জোটের রাজনীতিতে নীরব থাকার ভূমিকা পালন করছে বিএনপি।

২০ দলীয় জোটে বিএনপির কৌশলগত নীরবতার বিষয়ে দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেন, সত্যি বলতে ২০ দলীয় জোটের আর কোন প্রয়োজন নেই বিএনপির। সেজন্য আমরা ২০ দলকে নিয়ে মাথা ঘামাচ্ছি না। সম্প্রতি আমরা বরিশাল ও রাজশাহীতে সমাবেশ করেছি। উক্ত দুই সমাবেশে জোট নেতাদের কেউ দেখেনি। সঙ্গে প্রেস ক্লাবে মুশতাক আহমেদের মৃত্যুতে আমরা যে সমাবেশ করেছি, তাকে জামায়াত কিংবা বাকি ২০ দলীয় নেতার কোনো অবস্থান ছিলো না। মূলত আমরা দীর্ঘদিন জোটের রাজনীতি করেও খুব বেশি লাভবান হতে পারিনি। তাই ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যানের নির্দেশে ২০ দলীয় জোটের রাজনীতিতে দূরত্ব বজায় রাখছে বিএনপি।

তিনি আরো বলেন, শুনতে খারাপ লাগলেও এটি সত্য যে, ২০ দলীয় জোটে বিএনপি ব্যতীত অন্য কোন দলের খুব বেশি গ্রহণযোগ্যতা নেই। বলাচলে, জোটের দলগুলো বিএনপির জন্য এক ধরণের বোঝা স্বরূপ। তাই সংগঠন গোছাতে বিএনপি কৌশলগতভাবে জোটকে বাইরে রেখে কর্মসূচি দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। জোটের নেতারা চাইলেই ইচ্ছামতো সিদ্ধান্ত নিতে পারবেন। যে কেউ চাইলেই নিজের পথ বেছে নিতে পারেন।

বিষয়টিকে ভিন্নভাবে ব্যাখ্যা করে দলটির স্থায়ী কমিটির আরেক সদস্য মাহবুবুর রহমান বলেন, বিএনপি এখন থেকে কারো বোঝা বইবে না। ২০ দলকে নিয়ে আমাদের যে স্বপ্ন ছিল, পরিকল্পনা ছিল তার পুরোটাই ভেস্তে গেছে। ২০ দলীয় জোটের দলগুলো নাম সর্বস্ব। এদের নেই সাংগঠনিক শক্তি, নেই গ্রহণযোগ্যতাও। ছোট ছোট এই দলগুলো অনেকটাই পরগাছার মতো।

তিনি আরো বলেন, শেষ পর্যন্ত তারেক রহমান ২০ দলের বিষয়ে যে কৌশল অবলম্বন করেছেন তা সত্যিই প্রশংসনীয়। অকর্মণ্য, অলসদের সঙ্গ ত্যাগ করে একা চলাই উত্তম।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি