রবিবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১
  • প্রচ্ছদ » other important » মানসম্মত না হওয়ায় গণস্বাস্থ্যের কিট পরীক্ষাই করেনি সিডিসি!



মানসম্মত না হওয়ায় গণস্বাস্থ্যের কিট পরীক্ষাই করেনি সিডিসি!


বাংলা নিউজ ব্যাংক :
05.03.2021

ডেস্ক রিপোর্ট: ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরীর গণস্বাস্থ্য কেন্দ্র উদ্ভাবিত করোনা কিট যুক্তরাষ্ট্রের রোগ নিয়ন্ত্রণ বিষয়ক সংস্থা সেন্টার ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশন-সিডিসি পরীক্ষাই করেনি।

দেশে করোনা ভাইরাসের প্রকোপ দেখা দেয়ার পর গত বছরের মাঝামাঝি ভাইরাস শনাক্তে সক্ষম র‍্যাপিড অ্যান্টিবডি টেস্ট কিট উদ্ভাবনের ঘোষণা দেয় গণস্বাস্থ্য কেন্দ্র। এই কিট অনুমোদনের জন্য ব্যাপক চাপ দেয়া হয় সরকারকে।

এর অংশ হিসেবে বলা হয়েছিল, সরকার যদি কিটের অনুমোদন না দেয়, তাহলে সিডিসিকে সেই কিট দিয়ে দেয়া হবে।

ওই বছরের ১৭ মে সিডিসি কাছে কিছু নমুনা দেয়া হয় বলে দাবি করে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্র। পরে জানানো হয়, প্রতিষ্ঠানটি পরীক্ষা নিরীক্ষা করতে আরও ৮০০ কিট চেয়েছে।

তবে সিডিসির বাংলাদেশ প্রতিনিধি ড. মাইকেল ফ্রেইডম্যান বলেন, ‘করোনাভাইরাস শনাক্তে গণস্বাস্থ্যের উদ্ভাবিত কিট সিডিসি কখনও পরীক্ষা করেনি।’

কেন পরীক্ষা করা হয়নি- জানতে চাইলে সিডিসি কর্মকর্তা কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি।

গণস্বাস্থ্যের কিট পরীক্ষা করেনি সিডিসি

এর আগে গণস্বাস্থ্যের প্রতিষ্ঠাতা জাফরুল্লাহ চৌধুরীর দাবি করেছিলেন, চিঠি দিয়ে কিটের সক্ষমতা যাচাই করতে চেয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের সংস্থাটি।

গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের জিআর কোভিড-১৯ র‌্যাপিড ডট ব্লট কিট প্রকল্পের সমন্বয়কারী ডা. মুহিব উল্লাহ খোন্দকার বলেন, ‘১৭ মে একটি অনুষ্ঠানে কিছু কিট যুক্তরাষ্ট্রের সিডিসি প্রতিনিধির কাছে দেয়া হয়। পরে তারা ৭০০ থেকে ৮০০ কিটের চাহিদা দেয়। তবে সরকার এ কিট অনুমোদন না দেয়ার কারণে সিডিসি পিছিয়ে গেছে। এরপর থেকে আর কোনো আপডেট নেই।’

ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তর বলছে, মানোত্তীর্ণ না হওয়ায় অনুমোদন পায়নি এ কিট। এই কিটের সক্ষমতা যাচাই করেছে দেশের প্রথম মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয় (বিএসএমএমইউ)। তারা জানিয়েছে, করোনাভাইরাস শনাক্তে কার্যকর নয় গণস্বাস্থ্যের কিট।

গণস্বাস্থ্য উদ্ভাবিত কিট পুরোপুরি কার্যকর নয় বলে জানিয়েছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়।

র‌্যাপিড কিট নিয়ে শুরু থেকেই সতর্ক অবস্থানে সরকার। কারণ, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা কোনো ধরনের র‌্যাপিড কিট ব্যবহারের অনুমতি দেয়নি। তাদের পরামর্শ ছিল, করোনা শনাক্তে সবচেয়ে কার্যকরী পদ্ধতি আরটি পিসিআর টেস্ট।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি