মঙ্গলবার ২০ এপ্রিল ২০২১
  • প্রচ্ছদ » other important » কবরস্থানের ১৬ কঙ্কাল চুরি, বিএনপি নেতার দিকে সন্দেহের তীর



কবরস্থানের ১৬ কঙ্কাল চুরি, বিএনপি নেতার দিকে সন্দেহের তীর


বাংলা নিউজ ব্যাংক :
24.03.2021

নিউজ ডেস্ক : গাজীপুরের কালিয়াকৈরে পরপর দুই রাতে পৃথক কবরস্থান থেকে ১৬টি কঙ্কাল চুরি হয়েছে। সোমবার (১৫ মার্চ) ও মঙ্গলবার দিবাগত রাতের কোনও এক সময় দুর্বৃত্তরা উপজেলার আশাপুর এবং মহরাবহ এলাকার কবরস্থান থেকে কবর খুঁড়ে কঙ্কালগুলো চুরি করে। এ ঘটনায় ওই এলাকার অধিবাসীদের মধ্যে কঙ্কাল চুরির আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ছে। এটি  সাবেক বিএনপি নেতা তানভীর আহমেদ সিদ্দিকী ও তার সমর্থকদের কাজ হতে পারে বলে অনেকের ধারণা।

আশাপুর কবরস্থান কমিটির সাধারণ সম্পাদক হারুন-অর রশিদ জানান, সোমবার দিবাগত রাতে দুর্বৃত্তরা কবরস্থান থেকে কবর খুঁড়ে সাতটি কঙ্কাল চুরি করে নিয়ে যায়। চুরির দু’দিন আগ থেকে আমি নিজের চোখে এই এলাকার বিএনপি নেতা চৌধুরী তানভীর আহমেদ সিদ্দিকী ও তার লোকজনকে একাধিকবার দিন এবং রাতে ঘোরাঘুরি করতে দেখি। হয়তো তারা চুরি করতে পারেন।

এদিকে এ খবর এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে হাজার হাজার গ্রামবাসী কবরস্থানের সামনে জড়ো হতে থাকেন। তারা বিষয়টি কালিয়াকৈর থানাকে জানালে পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়। মঙ্গলবার সকালের দিকে এক ব্যক্তি ওই কবরস্থানের পাশ দিয়ে যাওয়ার সময় কবর খোঁড়া দেখতে পান। কৌতূহলবশত তিনি কবরের কাছে গিয়ে দেখতে পান কবরগুলোতে কোনও কঙ্কাল নেই।

ওই ঘটনার রেশ কাটতে না কাটতেই পরদিন মঙ্গলবার দিবাগত রাতে উপজেলার মহরাবহ এলাকার কবরস্থান থেকে কবর খুঁড়ে নয়টি কঙ্কাল চুরির ঘটনা ঘটেছে। কঙ্কাল চুরি বৃদ্ধি পাওয়ায় স্থানীয়দের মাঝে আতঙ্ক বেড়ে গেছে।

আশাপুর গ্রামের কবরস্থান থেকে কঙ্কাল চুরির ঘটনা ছড়িয়ে পড়লে বুধবার মহরাবহ গ্রামের লোকজন কবরস্থান পরিদর্শনে গিয়ে দেখেন তাদের কবরস্থান থেকেও কবর খুঁড়ে নয়টি কঙ্কাল চুরি করা হয়েছে। পরপর দুই রাতে কালিয়াকৈরের দুই গ্রাম থেকে মোট ১৬টি কঙ্কাল চুরি করেছে দুর্বৃত্তরা।

কালিয়াকৈর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) জুলহাস মিয়া বলেন, ‘বিষয়টি নিয়ে আমরা অবগত আছি। অনেকের সঙ্গে কথা বলে জানতে পেরেছি তানভীর আহমেদ বিএনপির কমিটিতে স্থান পাওয়ার পর থেকে বেপরোয়া হয়ে উঠেছেন। এলাকার মধ্যে যেকোনো বড় ধরনের অপরাধের পেছনে তার হাত রয়েছে বলে জানা গেছে। তবে এই ঘটনার সাথে সে জড়িত কিনা বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি