বুধবার ২১ এপ্রিল ২০২১



করোনার মধ্যেই জন্মদিন পালন, ইশরাকের প্রতি তারেকের ক্ষোভ!


বাংলা নিউজ ব্যাংক :
05.04.2021

স্বাস্থ্যবিধি না মেনেই করোনার মধ্যে নিজের জন্মদিন পালন করেছেন বিএনপির বৈদেশিকবিষয়ক উপ-কমিটির সদস্য ও গেল অনুষ্ঠিত ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে বিএনপি মনোনীত মেয়রপ্রার্থী ইশরাক হোসেন। আর এ খবর লন্ডনে পলাতক ফেরারি আসামি ও বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের কানে পৌঁছতেই তিনি যারপরনাই খেপেছেন। বলেছেন, এর ফল ইশরাককে ভোগ করতে হবে।

বিশ্বস্ত সূত্রের তথ্যমতে, মুখে ঘরোয়াভাবে জন্মদিন পালনের কথা বললেও কাজে তার ঠিক উল্টোটা দেখিয়েছেন ইশরাক হোসেন। সদলবলে তিনি রোববার (৪ এপ্রিল) দিবাগত রাত ১২টার পরপরই রাজধানীর গুলশানে অবস্থিত নিজ বাসভবনে কেক কাটেন ও হৈ হুল্লোড় করেন। এ সময় তার মা ও ভাইয়ের পাশাপাশি যারা উপস্থিত ছিলেন, তাদের কারো মুখেই ছিলো না মাস্ক। এমনকি মানা হয়নি কোন প্রকার স্বাস্থ্যবিধি। বরং একে-অপরের গা ঘেঁষাঘেঁষি করে ছিলেন। ব্যস্ত ছিলেন সেলফি তোলায় ও খোশগল্পে।

তবে বিষয়টি নিয়ে ইশরাকের দাবি, মা-ভাইয়ের পাশাপাশি পরিবারের কিছু লোক ছিল। ছিল কিছু কাছের মানুষও। তবে এটা পুরোপুরি সত্য নয় যে, কেউই স্বাস্থ্যবিধি মানেননি। কম-বেশি সবাই শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখার সঙ্গে সঙ্গে মুখে মাস্কও পরেছিলেন। দলের ভেতরে ঘাপটি মেরে থাকা আমার বিরুদ্ধ পক্ষ, মিডিয়াকে এমন তথ্য দিয়েছে। এটার ভিন্ন অর্থ খোঁজা কিংবা রাজনৈতিক আক্রমণ না করাই শ্রেয়।

লন্ডনের কিংস্টনভিত্তিক একটি সূত্র বলছে, করোনার মধ্যে ইশরাকের এমন কর্মকাণ্ডে বিব্রত তারেক রহমান। কারণ, এমনিতেই মামুনুল হক-নুরদের সামাল দিতে ব্যস্ত সময় কাটছে তার। এর ভেতরে ইশরাকের এমন কাণ্ডজ্ঞানহীন আচরণ তাকে ব্যথিত করেছে। একবার জন্মদিন পালন না করলে কি এমন ক্ষতি হতো তার?

দেশের রাজনৈতিক বিজ্ঞজনদের ভাষ্য, হেফাজত ও নুর গংদের পাকিস্তানের অর্থায়নে সরকারের বিরুদ্ধে কৌশলে লেলিয়ে দিয়ে নিজেরা খোশ মেজাজে আছেন ইশরাক হোসেনসহ বিএনপি নেতৃবৃন্দ। ইশারাকের জন্মদিন পালন, তারই বহিঃপ্রকাশ। কারণ, যেখানে সরকার করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের জন্য সপ্তাহব্যাপী লকডাউন ঘোষণা করেছে, সেখানে ইশরাকের সংঘবদ্ধভাবে জন্মদিন পালন এটাই প্রমাণ করে-তারা দেশ ও দশের ভালো চান না। সে কারণেই তারা এমন আয়োজন করেছেন।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি