মঙ্গলবার ১১ মে ২০২১
  • প্রচ্ছদ » Lead 2 » বাবার মতো অজুহাত দিয়ে রোজা রাখছেন না জাইমা রহমান



বাবার মতো অজুহাত দিয়ে রোজা রাখছেন না জাইমা রহমান


বাংলা নিউজ ব্যাংক :
02.05.2021

নিউজ ডেস্ক: প্রতিবছর শারীরিক অবস্থার অবনতির দোহাই দিয়ে রোজা না রাখলেও এবার করোনার চিকিৎসার অজুহাতে রমজানে রোজা রাখতে পারছেন না বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া। এদিকে মায়ের পথ অনুসরণ করে লন্ডনে অবস্থানরত দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানও রোজা রাখছেন না। জানা যায়, তার বড় মেয়ে জাইমা রহমানও শারীরিক অবস্থার দোহাইকে কাজে লাগিয়ে রোজা রাখা বন্ধ করে দিয়েছেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্র মতে, ব্রিটিশ নিয়মে মানুষ হবার কারণে এমনিতেই খ্রিষ্টান রীতি পছন্দ জাইমা রহমানের। এছাড়া তার বন্ধুবান্ধব সবই খ্রিষ্টান। এ কারণে এমনিতেই রোজা রাখেন না তিনি। তবে মা জোবায়াদা রহমান ও ছোট বোন জাফিয়া রহমান রোজা রাখেন, আর এ কারণে জোবায়দা রহমান সব সময় জাইমাকে রোজা রাখতে চাপ প্রয়োগ করে। আর এ চাপ থেকে বাঁচতে নিজেকে শারীরিক অসুস্থ বলে মাকে জানান জাইমা রহমান। একই অজুহাতে ১৫টি রোজার একটিও পালন করেননি তিনি। আর একারণে জোবায়দা রহমানও তাকে খুব একটা প্রেশার দিতে পারেন না। কারণ একই অজুহাতে জাইমার বাবাও রোজা রাখেন না।

এদিকে লন্ডনে বসবাসরত তারেক রহমানের প্রতিবেশীরা বলছে, বেগম জিয়ার মতোই অজুহাত দেখিয়ে রোজা রাখছেন না তারেক ও জাইমা। করোনার ভয়ে চিকিৎসার নামে নিয়মিত অ্যালকোহল পান করছেন তারেক। আর জাইমা বন্ধুদের সঙ্গে মজে থাকার জন্য অসুস্থতার ভান ধরছেন। মূলত নেশা বন্ধ করতে না পারার কারণে করোনাকে অজুহাত করে রোজা রাখছেন না তারেক। তবে তারেকের রোজা না রাখার ইতিহাস অনেক পুরনো। ২০০৯ সালের পর থেকেই খুব কম বছর তিনি রোজা রেখেছেন। আর এবার করোনা চিকিৎসায় অ্যালকোহল কার্যকরী, এমন উদ্ভট ও অযৌক্তিক তথ্যে বিশ্বাস করে নিয়মিত মদ পান করছেন তারেক। যার কারণে রোজা রাখতে তার অনীহা। ধর্মের প্রতি অনীহা ও ইসলামি শিক্ষার অভাব থাকার কারণে নানা অজুহাতে বেগম জিয়া ও তারেক রহমান রোজা রাখেন না বলেও বিএনপির রাজনীতিতে গুঞ্জন রয়েছে। দুঃখজনক বিষয় হচ্ছে, খালেদা-তারেকের দেখা দেখি তাদের মেয়েটাও নষ্ট হয়ে গেলো।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি