শুক্রবার ১৮ জুন ২০২১



আর কতো মিথ্যা আশ্বাস দেবে বিএনপি


বাংলা নিউজ ব্যাংক :
15.05.2021

নিউজ ডেস্ক : একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে ও পরে বিভিন্ন ইস্যুতে রাজনৈতিক আন্দোলন গড়ে তুলতে ব্যর্থ হয়েছে বিএনপি। বিগত ১৪ বছরে সরকার পতনের আন্দোলন কিংবা নিজেদের হারানো গ্রহণযোগ্যতা ফিরে পেতে কোন জোরালো কর্মসূচি গ্রহণ করতে পারেনি দলটি। যার কারণে বিএনপির গ্রহণযোগ্যতা তলানিতে গিয়ে পৌঁছেছে বলেও নানা গুঞ্জন চাউর হয়েছে রাজনীতিতে।

বিএনপির সামগ্রিক ব্যর্থতার বিষয়ে জানতে চাইলে দলটির সাবেক নেতা ও বর্তমানে বিকল্প ধারার প্রেসিডিয়াম সদস্য শমসের মুবিন চৌধুরী বলেন, জনসম্পৃক্ততা বাড়িয়ে সরকারবিরোধী আন্দোলন গড়ে তোলা এমনকি নিজেদের দাবিটুকু আদায় করতে ব্যর্থ হয়েছে। গত ১০ বছরে বিএনপি সামগ্রিকভাবে একটি ব্যর্থ ও অথর্ব রাজনৈতিক দল হিসেবে জনগণের সামনে দাঁড়িয়েছে। দলের ভেতর নেই কোন গণতান্ত্রিক চর্চা, পুরোটা স্বৈরতান্ত্রিক প্রক্রিয়ায় চলে বিএনপি।

তিনি আরো বলেন, আসলে একাধিক ইস্যু থাকলেও বিএনপি প্রতিবার সিদ্ধান্তহীনতায় ভুগে সুযোগগুলো হারিয়েছে। তারা কোন ইস্যু নিয়ে জনগণের পাশে দাঁড়াবে তা নির্ধারণ করতে পারছে না। সুযোগ কাজে লাগানোর আগেই সিদ্ধান্তহীনতা ও উপস্থিত বুদ্ধির অভাবে সুযোগ হাতছাড়া করে ফেলে। এগুলো আসলে রাজনৈতিক দৈন্যদশার বহিঃপ্রকাশ মাত্র।

এই বিষয়ে বিএনপির পরামর্শক হিসেবে পরিচিতি গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, বিএনপির রাজনীতিতে অনেক গলদ রয়েছে। তারা ক্ষমতার চেয়ার নিয়ে টানাটানিতে ব্যস্ত। অথচ তাদের উচিত ছিল সরকারের ভুল-ত্রুটি নিয়ে তথ্যভিত্তিক সমালোচনা ও সমাধানের পথ দেখানো। বিএনপি ভালো ভালো কাজ করে সরকারের জনপ্রিয়তাকে চ্যালেঞ্জ দেয়ার পাশাপাশি জনগণের মনও জয় করতে পারতো। অথচ সঠিক পরিকল্পনা ও গবেষণা অভাবে সেটি বিএনপির জন্য দুঃসাধ্য বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে।

তিনি আরো বলেন, অপরিকল্পিত সিদ্ধান্ত বিভিন্ন সময়ে বিএনপির জন্য বুমেরাং হয়ে দাঁড়িয়েছে। ঈদের পরের আন্দোলন, এমন আশায় অন্তত ৯ বছর পার। আর কতো মিথ্যা আশ্বাস! বিএনপি পুনর্গঠনে দলটিকে ভেঙ্গে নতুন আঙ্গিকে সাজিয়ে রাজপথে নামলেই মিলবে সুফল।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি