বুধবার ২৮ জুলাই ২০২১
  • প্রচ্ছদ » Lead 2 » ফের প্রকাশ হচ্ছে সুইস ব্যাংকের তথ্য, ভয়ে কাঁপছে বিএনপি



ফের প্রকাশ হচ্ছে সুইস ব্যাংকের তথ্য, ভয়ে কাঁপছে বিএনপি


বাংলা নিউজ ব্যাংক :
16.06.2021

নিউজ ডেস্ক : এতদিন পর্যন্ত যে কেউ চাইলে নাম গোপন রেখে তার সমস্ত কালো টাকা সুইস ব্যাংকে রেখে দিতে পারতো। তবে এ নিয়ম শিথিল করছে সুইস কর্তৃপক্ষ। সুইস ব্যাংকে যাদের অ্যাকাউন্ট রয়েছে, তাদের তথ্য আর গোপন থাকছে না। সুইস ব্যাংক কর্পোরেশনের আওতাধীন ব্যাংকগুলোর গ্রাহকদের গোপন তথ্য প্রকাশ করার উদ্যোগ নিয়েছে সুইজারল্যান্ড সরকার।

এদিকে সুইজারল্যান্ড সরকারের এমন তথ্যে তোলপাড় শুরু হয়েছে বিএনপির রাজনীতিতে। বিএনপির ব্যবসায়ী নেতা বিশেষ করে দুর্নীতির দায়ে অভিযুক্ত একাধিক নেতা অবৈধ সম্পদের তথ্য ফাঁস হওয়ার আগেই দেশত্যাগ করার পরিকল্পনা করছেন বলেও গুঞ্জন উঠেছে। একাধিক দায়িত্বশীল সূত্রের বরাতে তথ্যের সত্যতা সম্পর্কে নিশ্চিত হওয়া গেছে।

একটি সূত্র বলছে, সুইস সরকারের এমন সিদ্ধান্ত জানার পর থেকেই দুর্নীতি মামলায় অভিযুক্ত নেতারা আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন। বিশেষ করে দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন, ব্যারিস্টার জমির উদ্দিন সরকার, আব্দুল আউয়াল মিন্টু, মির্জা আব্বাস ও মোসাদ্দেক আলী ফালু’র মতো প্রশ্নবিদ্ধ নেতারা। কারণ মোশাররফ হোসেন, জমির উদ্দিন, মিন্টুদের মতো নেতাদের নামে দুর্নীতি ও অর্থ পাচার সংক্রান্ত মামলা চলমান রয়েছে। এর মধ্যে আবার যদি সুইস ব্যাংক জমাকৃত অর্থের খবর প্রচার করে তবে বিষয়টি তাদের জন্য ‘গোঁদের উপর বিষফোড়া’র মতো হবে।

সূত্রটি এও জানায়, এমনিতেই বিভিন্ন মামলার জালে আটকা পড়ে এসব নেতাদের জীবন যায় যায় অবস্থায়। এর মধ্যে আবার নতুন করে অর্থ পাচারের মামলা হলে বাকিটা জীবন জেলেই কাটবে, এমন আতঙ্কে দিন পার করছেন বিএনপির নেতারা। জানা গেছে, জমির উদ্দিন, মিন্টু এরই মধ্যে বিদেশে ঈদ উৎযাপনের পরিকল্পনার কথা জানিয়েছেন দলকে। গুঞ্জন উঠেছে, দুদকের হাত থেকে বাঁচতে এবং জেল-জরিমানা থেকে পালাতে বিদেশ পাড়ি দেয়ার মতলব করছেন তারা।

এই বিষয়ে ব্যারিস্টার জমির উদ্দিনের মন্তব্য জানতে চাইলে কিছুটা বিরক্তি নিয়ে তিনি বলেন, সুইজারল্যান্ড সরকার যা করার পরিকল্পনা করছে তা ক্লাইন্টদের সাথে প্রতারণার সামিল। সত্যিই যদি ব্যাংকিং তথ্য ফাঁস করে দেয়া হয়, তবে বিশ্বাস বলে কিছু থাকবে না। এসব করে সাধারণ অ্যাকাউন্ট হোল্ডারদের ভয়-ভীতি দেখাচ্ছে সুইস কর্তৃপক্ষ। আমি এজন্য তীব্র নিন্দা ও ক্ষোভ প্রকাশ করছি।

বিদেশে কোরবানির ঈদ উৎযাপনের গুঞ্জন সম্পর্কে জানতে চাইলে জমিরউদ্দিন বলেন, যুক্তরাষ্ট্র, কানাডায় আত্মীয়-স্বজন আছে কিছু। চেষ্টা করছি এবারের ঈদ বাইরে করার। তবে দেশ ছেড়ে পালানোর চেষ্টা বলে আমার নামে যারা বদনাম করছে, তারা কুচক্রী। অন্যদের ব্যাপারে জানি না, কিন্তু দেশ ছেড়ে পালানোর পরিকল্পনা অন্তত আমার নেই।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি