মঙ্গলবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১
  • প্রচ্ছদ » Lead 3 » অঢেল সম্পদের মালিক হয়েও ত্রাণ বিমুখ মুন্সীগঞ্জ বিএনপির নেতারা



অঢেল সম্পদের মালিক হয়েও ত্রাণ বিমুখ মুন্সীগঞ্জ বিএনপির নেতারা


বাংলা নিউজ ব্যাংক :
30.07.2021

নিউজ ডেস্ক: মুন্সীগঞ্জে করোনা পরিস্থিতির শুরু থেকেই অসহায়দের পাশে দাঁড়াতে দেখা যায়নি বিএনপিকে। দীর্ঘদিন ক্ষমতায় না থাকার অজুহাতে ত্রাণ কার্যক্রম থেকে নিজেদের গুটিয়ে নিয়েছে জেলা বিএনপি। অথচ জেলা বিএনপির ১৭১ সদস্যের কমিটির অধিকাংশ নেতা অঢেল সম্পদের মালিক।

কেন্দ্রীয় ও জেলা বিএনপির শীর্ষ নেতারা জানান, তাদের প্রতি জনগণের আস্থা-আকাঙ্ক্ষা আর নেই। এ কারণে তারাও ত্রাণ নিয়ে মানুষের পাশে দাঁড়াচ্ছেন না।

জানা গেছে, বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক কোষাধ্যক্ষ মিজানুর রহমান সিনহা এক সময় মুন্সীগঞ্জের মানুষের কাছে পরোপকারী হিসেবে পরিচিত ছিলেন। রাজনীতিতে তার ব্যক্তিগত বিপুল অর্থের বিনিয়োগ ছিল। তবে দল ক্ষমতায় না থাকায় গত কয়েক বছর ধরে তিনি এলাকায় যান না। খোঁজ নেন না অসহায় মানুষের। করোনাকালে ত্রাণ কার্যক্রমেও দেখা যায়নি তাকে।

মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা বিএনপির সভাপতি ও জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি মহিউদ্দিন আহমেদ এলাকায় প্রভাবশালী ব্যবসায়ী হিসেবে পরিচিত। তার রয়েছে অঢেল সম্পদ। তার ভাই জেলা বিএনপির সভাপতি। এতকিছুর পরও করোনাকালে দুই ভাইকে ত্রাণ কার্যক্রমে দেখা যায়নি।

এছাড়া বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির ভাইস চেয়ারম্যান শাহ্‌ মোয়াজ্জেম হোসেন, কেন্দ্রীয় বিএনপির স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক মীর সরফত আলী সপু, জেলা বিএনপির সাবেক সহ-সভাপতি শেখ মো. আবদুল্লাহ, কেন্দ্রীয় বিএনপির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুস সালাম আজাদ, মিরকাদিম পৌর বিএনপির সভাপতি জসিম উদ্দিনসহ জেলা-উপজেলা ও ইউনিয়ন বিএনপির অসংখ্য নেতা নির্বাচন এলেই এলাকায় পা রাখেন। অন্য সময়ে তাদের চেহারাও দেখে না মুন্সীগঞ্জের মানুষ। এমনকি প্রায় দুই বছর ধরে চলমান করোনা পরিস্থিতিতেও ত্রাণ হাতে অসহায় মানুষের পাশে দেখা যায়নি তাদের।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, মুন্সীগঞ্জ জেলা বিএনপিতে ১৭১ সদস্যের কমিটিতে শিল্পপতি ও ব্যবসায়ী নেতা রয়েছেন অনেক। এছাড়া উপজেলা ও ইউনিয়ন কমিটিতেও রয়েছেন। কিন্তু তারা মাঠের রাজনীতিতে নেই। করোনার সময়ও জনগণের পাশে নেই।

কেন্দ্রীয় ও জেলা বিএনপির শীর্ষ নেতাদের ত্রাণ কার্যক্রমে নিষ্ক্রিয়তা নিয়ে মন্তব্য করতে রাজি হননি মুন্সীগঞ্জ জেলা বিএনপির সভাপতি আব্দুল হাই।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি