মঙ্গলবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১
  • প্রচ্ছদ » Lead 3 » ভুঁইফোঁড় সংগঠনের বিরুদ্ধে কঠোর অবস্থানে আওয়ামী লীগ



ভুঁইফোঁড় সংগঠনের বিরুদ্ধে কঠোর অবস্থানে আওয়ামী লীগ


বাংলা নিউজ ব্যাংক :
05.08.2021

নিউজ ডেস্ক: যেসব ভুঁইফোড় সংগঠনের নেতারা আওয়ামী লীগের নাম ব্যবহার করে দলকে বিব্রতকর অবস্থায় ফেলছেন তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে। এসব অবৈধ সংগঠনের কাউকেই ছাড় দেওয়া হবে না বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন আওয়ামী লীগের নীতিনির্ধারকরা।

সম্প্রতি এক অনুষ্ঠানে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ভুঁইফোড় সংগঠন নেতারা দলের নাম ভাঙিয়ে অনিয়ম, দুর্নীতি, সুবিধা নিতে দলের নাম ব্যবহার করেছে এমন প্রমাণ পেলেই দলের পাশাপাশি আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে।

তিনি বলেন, ব্যাঙের ছাতার মতো গজিয়ে ওঠা ভুঁইফোড় ‘লীগ’ ও ‘রাজনৈতিক দোকানদারদের বিরুদ্ধে শুদ্ধি অভিযান শুরু করেছে আওয়ামী লীগ। দলের সুনাম ক্ষুন্নকারী কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, আওয়ামী লীগ কঠোর অবস্থানে থাকার কারণে ভুঁইফোড় সংগঠনের অনেক নেতারা এরই মধ্যে গা-ঢাকা দিয়েছে। কেউ কেউ নিজের ফেসবুক আইডি ডিঅ্যাকটিভ করে গা-ঢাকা দেওয়ার চেষ্টা করছে।

এর মধ্যেই ভুঁইফোড় সংগঠনের বেশকিছু নেতা র‌্যাবের হাতে গ্রেফতার হয়েছে। এদের মধ্যে নানা কর্মকাণ্ডে আলোচিত-সমালোচিত ‘চাকরিজীবী লীগ’ খুলে বসা হেলেনা জাহাঙ্গীর এবং ‘বাংলাদেশ জননেত্রী শেখ হাসিনা পরিষদ’ এর সভাপতি মনির ওরফে দরজি মনির গ্রেফতারের পর রিমান্ডে নেয়া হয়েছে। এমন আরো অনেক ভুঁইফোড় সংগঠনের নেতাদের খুঁজছে আইন শৃঙ্খলা বাহিনী।

রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা বলছেন, যে দল যখন ক্ষমতায় থাকে তাদের হয়ে সুবিধাভোগী করতে ভুঁইফোড় সংগঠনগুলো গড়ে ওঠে। সুবিধাভোগীরা গত এক যুগে আওয়ামী লীগের নাম ভাঙিয়ে গড়ে তুলেছে নতুন নতুন সংগঠন। এর মধ্যে ঢাকা নগরীতেই প্রায় দুই শতাধিক সংগঠন রয়েছে। এগুলো আওয়ামী লীগ, বঙ্গবন্ধু এবং মুক্তিযোদ্ধার নাম ব্যবহার করেছে। এমনকি জেলা-উপজেলা ইউনিয়ন পর্যায়েও তাদের বিস্তার রয়েছে। এসব সংগঠন দলের সুনাম ক্ষুণ্ণ করে মূল দলের মধ্যে জায়গা করে নিলে দলের মধ্যে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হবে। তাই এদের বিরুদ্ধে এখনই ব্যবস্থা নেয়া উচিত।

এ বিষয়ে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দীন নাছিম বলেন, একটি স্বার্থলোভী মহল দলের নাম ব্যবহার করে সুবিধা নিতে অবৈধ সংগঠন গড়ে তুলেছে। যাদের কারণে দলের সুনাম ক্ষুণ্ণ হচ্ছে। এদের কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না। দলের মধ্যে শুদ্ধিকরণ করতে, অনুপ্রবেশকারী, সুবিধাবাদী বিরুদ্ধে অভিযান চলছে।

আওয়ামী লীগকে যারা বিতর্কিত করতে চায় তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে দলের নীতিনির্ধারকরা আইন শৃঙ্খলা বাহিনীকে বলেছেন বলেও জানান তিনি।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি