মঙ্গলবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১
  • প্রচ্ছদ » Lead 3 » দলীয় বিপর্যয় দেখে হতাশ বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতারা



দলীয় বিপর্যয় দেখে হতাশ বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতারা


বাংলা নিউজ ব্যাংক :
13.08.2021

নিউজ ডেস্ক : দুর্নীতির দায়ে দণ্ডিত বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি আদায়ে দলটির অভ্যন্তরে বাড়ছে হতাশা। দলের ভঙ্গুর পরিস্থিতিতে দীর্ঘদিনের অনুচ্চারিত অভিযোগ ও অভিমান উগরে দিচ্ছেন দলটির সিনিয়র নেতৃবৃন্দ। সিনিয়র নেতাদের হতাশা ও ক্ষোভের বিষয়টি তৃণমূলেও নেতিবাচক প্রভাব ফেলছে, প্রকাশ্যে আসছে দলীয় দুর্দশা।

এদিকে, সিনিয়র নেতাদের এমন মনোভাব বিএনপির রাজনৈতিক চরিত্রকে হরণ করবে বলে মনে করছেন খোদ দলটির নীতি-নির্ধারকরা। বিপদের দিনে ধৈর্য না ধরে, দলকে ঐক্যবদ্ধ করা বাদ দিয়ে যারা এসব গুজব ও হতাশার বাণী ছড়াচ্ছেন তাদের আগামীতে গুরুত্বপূর্ণ পদ না দেয়ারও দাবি উঠছে বিএনপির বিভিন্ন পর্যায় থেকে।

সাম্প্রতিককালে বিএনপি নেতা গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, শামসুজ্জামান দুদু এমনকি ঐক্যফ্রন্ট নেতা মাহমুদুর রহমান মান্না দলীয় ব্যর্থতার জন্য বিএনপি নেতাদের গণহারে যেভাবে দোষ দিচ্ছেন তাতে দলের ভাবমূর্তি নষ্ট হচ্ছে বলে মনে করেন দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার জমির উদ্দিন সরকার। তিনি বলেন, আজকে বেগম জিয়ার মুক্তি আদায়ে রাজপথে না নেমে আমরা নিজেরাই কাদা ছোড়াছুড়ি করছি। অবশ্য এর জন্য সাংগঠনিক দুর্বলতাকে দায়ী করা চলে। এরপরও দল চালাতে গেলে একটু কৌশলী না হলে চলে না। এখন দেশবাসী সবাই জানে যে, বিএনপি দুঃসময় পার করছে। সুতরাং এই দুঃসময়ে আমাদের উচিত হবে নেতাদের পাশে থেকে তাদের সাহস যোগানো। অথচ গয়েশ্বরের মতো অনেক নেতাই করছেন তার উল্টোটা।

তিনি আরো বলেন, আমাদের প্রতিশ্রুতির অভাব রয়েছে। আমাদের কথায় ও কাজের মাঝে বিস্তর ফারাক রয়েছে। বেগম জিয়ার অনুপস্থিতি আমাদের মানসিকভাবে দুর্বল করে দিয়েছে। এছাড়া ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান বিদেশে থাকায় দলকে সঠিকভাবে পরিচালনা করতে বেশ অসুবিধাই পোহাতে হচ্ছে। এগুলো সবই বুঝি আমরা। তাই বলে তো দলের বিরুদ্ধে এসব নেতিবাচক কথা জনসম্মুখে উগরে দেয়া ঠিক না। আমাদেরকে আগামীতে অবশ্যই সচেতন হতে হবে।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি