মঙ্গলবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১



খালেদা জিয়ার লন্ডন যাওয়ার সিদ্ধান্তে হতাশ সিনিয়ররা


বাংলা নিউজ ব্যাংক :
06.09.2021

নিউজ ডেস্ক: উন্নত চিকিৎসা নিতে দুর্নীতি মামলায় জেল খেটে সাময়িক মুক্তিপ্রাপ্ত বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া চিকিৎসার জন্য লন্ডনে যাচ্ছেন। তার গৃহকর্মী ফাতেমাও যাচ্ছেন তার সাথে। দুজনেরই ভিসা করা হয়েছে। শুধুমাত্র রাজনৈতিক হিসাব-নিকাশ মিললেই সুবিধাজনক সময়ে তিনি পাড়ি দেবেন লন্ডন, এমন একটি গুঞ্জন ছড়িয়ে পড়েছে দেশের রাজনীতিতে। তবে বেগম জিয়া কবে, কোন উদ্দেশ্যে এবং কেন বিদেশ যাচ্ছেন সেই বিষয়ে কিছু জানেন না বিএনপির শীর্ষ নেতারা।

জানা গেছে, বেগম জিয়ার বিদেশ যাত্রার গুঞ্জন নিয়ে বিরক্ত ও বিভ্রান্ত বিএনপির নেতারা। তারা বুঝতে পারছেন না, কেন হঠাৎ বেগম জিয়া এমন সিদ্ধান্ত নিলেন। আর গুঞ্জন যদি সত্যি হয় তবে বিএনপি দেশে নেতৃত্বশূন্য হয়ে পড়বে বলেও শঙ্কা প্রকাশ করেছেন দলটির নীতি-নির্ধারকরা।

বেগম জিয়ার বিদেশ যাওয়া নিয়ে চলমান গুঞ্জনের বিষয়ে জানতে চাইলে দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার জমির উদ্দিন সরকার বলেন, ম্যাডাম জিয়ার শরীর ভালো না। তার চিকিৎসা চলছে। এখন যদি তিনি উন্নত চিকিৎসা নিতে বিদেশ যেতে চান, তাহলে সেটি তার ব্যক্তিগত ব্যাপার হবে। তবে যতদূর জানি তিনি লন্ডনে যেতে আগ্রহী নন। আবার মানুষের মত পাল্টাতে তো সময় লাগে না। সত্যি বলতে-ম্যাডামের লন্ডন যাত্রার গুঞ্জন নিয়ে আমরা বিব্রত, বিভ্রান্ত ও বিরক্ত। কারণ প্রতিদিন নানা মহল থেকে ফোন পাচ্ছি কিন্তু কোন সদুত্তর দিতে পারছি না। তবে সত্যি যদি ম্যাডাম বিদেশ চলে যান, তবে দলের বড় ধরনের ক্ষতি হয়ে যাবে। দেশে দলকে নেতৃত্ব দেয়ার কেউ থাকবে না।

বিষয়টিকে ভিন্নভাবে ব্যাখ্যা করে দলের আরেক স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেন, বিদেশ চলে গেলে ম্যাডামের আপোষহীন তকমা কিন্তু বিতর্কিত হয়ে পড়বে। তিনি এই ভুল করবেন না। তবে মানুষের মন বলে কথা কখন কি মন চায় তা বোঝা মুশকিল। এই গুঞ্জন নিয়ে আমি ভারি বিরক্ত। অনেকেই জানতে চাচ্ছেন তবে কি বিএনপি নির্বাসিত ও বিদেশ নেতৃত্ব নির্ভর দলে পরিণত হচ্ছে? আমি কোন উত্তর দিতে পারছি না। আশা করি ম্যাডাম এমন বিতর্কিত সিদ্ধান্ত নেবেন না।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি