শুক্রবার ২২ অক্টোবর ২০২১
  • প্রচ্ছদ » Lead 3 » কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়ে জামায়াত নেতা উধাও



কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়ে জামায়াত নেতা উধাও


বাংলা নিউজ ব্যাংক :
21.09.2021

নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে ব্যবসায় বিনিয়োগের কথা বলে সাধারণ মানুষের কাছ থেকে কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়ে উধাও হয়েছেন এক জামায়াত নেতা। তিনি মূলত ছিলেন একজন বিরিয়ানি ব্যবসায়ী। তার নাম মো. মহিউদ্দিন (৩৫)।

এ ঘটনায় রোববার রাতে সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন ভুক্তভোগীরা। তারা টাকা লেনদেনের স্ট্যাম্প পুলিশের কাছে জমা দেন।

ভুক্তভোগীরা জানান, মো. মহিউদ্দিন সিদ্ধিরগঞ্জের মিজমিজি এলাকায় গত ১৫ বছর ধরে বসবাস করছেন। কখনো ফলের ব্যবসা কখনো কম্বলের ব্যবসা করেন তিনি। জামায়াতের রাজনীতির সাথেও তিনি সম্পৃক্ত ছিলেন। দুই বছর ধরে চিটাগাং রোডের কাসসাফ সুপার মার্কেটের নিচতলায় ‘মহিউদ্দিন বিরিয়ানি হাউস অ্যান্ড রেস্টুরেন্ট’ নামে একটি দোকান পরিচালনা করে আসছিলেন জামায়াত নেতা মহিউদ্দিন। ব্যবসার সুবাদে এলাকার মানুষের সঙ্গে তার সুসম্পর্ক গড়ে ওঠে। সম্পর্কের সুযোগ নিয়ে লাভের টাকা কয়েকগুণ বাড়িয়ে দেওয়ার আশ্বাস দিয়ে সাধারণ মানুষকে তার ব্যবসায় বিনিয়োগ করতে বলেন। তাকে বিশ্বাস করে স্ট্যাম্পে সই দিয়ে টাকা বিনিয়োগ করেন অনেকে।

জানা যায়, অভিযোগকারীদের মধ্যে আব্দুল বাতেন, মজিবুর ও আনোয়ারের কাছ থেকে ৬৩ লাখ টাকা, ওবায়দুরের কাছ থেকে ১৫ লাখ, রিপন নামে একজনের কাছ থেকে ২২ লাখ, সুমনের কাছ থেকে সাড়ে ১৭ লাখ ও মফিজুলের কাছ থেকে ৭ লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছেন তিনি। এছাড়াও অনেকের কাছ থেকে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছেন বলেও অভিযোগ উঠেছে।

ভুক্তভোগী ব্যবসায়ী সুমন বলেন, ‘আমি জামায়াত নেতা মহিউদ্দিনকে বিশ্বাস করে আমার টাকা দিয়েছিলাম। সে আমার টাকা নিয়ে উধাও হয়ে গেছে। আমি এখন নিঃস্ব। আমাকে রাস্তার ফকির বানিয়ে চলে গেছে সে। আমি প্রশাসনের কাছে দাবি জানাচ্ছি যাতে তাকে ধরে আমাদের টাকা ফিরিয়ে দেয়।’

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, একটি বেসরকারি ব্যাংক থেকে এক মাস আগে ১৩ লাখ টাকা ঋণ নিয়েছেন মহিউদ্দিন।

সিদ্ধিরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মশিউর রহমান জানান, থানায় কয়েকজন ভুক্তভোগী লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। পুলিশের কয়েকটি দল পলাতক মহিউদ্দিনকে আটকের চেষ্টা চালাচ্ছে।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি