রবিবার ১৭ অক্টোবর ২০২১
  • প্রচ্ছদ » Lead 3 » খালেদার সঙ্গে গোপন বৈঠকে ফখরুল, দলের অভ্যন্তরে গুঞ্জন



খালেদার সঙ্গে গোপন বৈঠকে ফখরুল, দলের অভ্যন্তরে গুঞ্জন


বাংলা নিউজ ব্যাংক :
22.09.2021

খালেদা জিয়ার সঙ্গে দেখা করলেন দলীয় মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। আর তার এই চুপিসারে দেখা করা নিয়ে দলের অভ্যন্তরে চলছে নানা গুঞ্জন। অনেকের ধারণা, গোপন কোনো মিশন নিয়েই সেখানে ঘন্টাব্যাপী বৈঠকে মশগুল ছিলেন খালেদা জিয়া ও ফখরুল ইসলাম।

একটি পক্ষ বলছে, তাহলে কী তারেককে মাইনাস করে পুনরায় দলের নেতৃত্ব খালেদার হাতেই থাকছে? অপরপক্ষের দাবি, তারেকের সঙ্গে বনিবনা না হওয়ায় খালেদার কাছে বিচার দিতেই যান তার আস্থাভাজন ফখরুল।

তবে বিশিষ্টজনদের ভাষ্য আবার ভিন্ন। তারা বলছেন, হয়তো নতুন কিছুই হতে চলেছে। কে জানে খালেদা-ফখরুলের নেতৃত্বে বিএনপিতে নতুন চমক আসলেও আসতে পারে।

এদিকে দলের নির্ভরযোগ্য সূত্রে জানা গেছে, দীর্ঘদিন ধরেই বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়া ও ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের ভেতরে দলীয় নেতৃত্ব নিয়ে চলছে নীরব যুদ্ধ। কে কাকে মাইনাস করে দখলে নেবেন দলের পুরো নেতৃত্ব, এ নিয়ে চলছে নানা হিসাব-নিকাশ।

তবে বৈঠকে খালেদা ও ফখরুলের মাঝে কী নিয়ে আলোচনা হয়েছে, তা বলতে রাজি হননি মির্জা ফখরুল। তিনি বলেন, আকাশে চাঁদ উঠলে মানুষ দেখতে পাবেই। তাই এখনই সব না বলা ভালো। ধৈর্য ধরুন। ধৈর্যের ফল মিষ্টি হয়।

বিএনপির এই তৃতীয় ক্ষমতাধর ব্যক্তির বক্তব্য ও আচরণ- উভয়ই রহস্যজনক উল্লেখ করে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক দলের স্থায়ী কমিটির এক সদস্য বলেন, ফখরুলের এমন আচরণ সন্দেহজনক। তিনি কাউকে কিছু না জানিয়ে কেন ম্যাডামের (খালেদা জিয়া) সঙ্গে দেখা করতে গেলেন, তাও আবার রাতের বেলায়। নিশ্চয়ই এর পেছনে তার ব্যক্তিস্বার্থ আছে। ভাবছেন, সামনে তো কাউন্সিল। যদি আবারো মহাসচিব পদে আসীন হওয়া যায়। কিন্তু সেটা কি আসলেই সম্ভব? তিনি কি আদৌ আবার এই পদের যোগ্য?

বিষয়টি নিয়ে তারেক দারুণ ক্ষুব্ধ, এ বিষয়ে লন্ডনের একটি সূত্র বলছে, তারেক রহমান জানেনই না ফিরোজাতে গেছেন ফখরুল। তাকে জানানোর প্রয়োজনও মনে করেননি তিনি। আর ফখরুলের এমন আচরণে দারুণ কষ্ট পেয়েছেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি