ত্যাগী-যোগ্য নেতাদের বাদ দিয়ে কমিটি গঠনের অভিযোগ

কেন্দ্রীয় কমিটি গঠন নিয়ে অসন্তোষ বাড়ছে বিএনপির ‘ভ্যানগার্ড’ খ্যাত ছাত্রদলে। সংগঠনের ত্যাগী ও পরীক্ষিত নেতাকর্মীদের বাদ দিয়ে কমিটি গঠনের কারণে এই অস্থিরতা দেখা দিয়েছে। এই কমিটি মানতে চাইছেন না কেউ কেউ। তারা বলছেন, সংগঠনের ত্যাগী ও যোগ্যদের বাদ দিয়ে কমিটি গঠন করা হয়েছে। যারা রাজনীতিতে ৭-৮ বছর ধরে সম্পৃক্ত নয়, তাদেরকে পদ দেয়া হয়েছে। আর এই কমিটিতে ৪০-৫০ জন বিবাহিত নেতাও পদ পেয়েছেন।

নামপ্রকাশে অনিচ্ছুক ছাত্রদলের পদবঞ্চিত এক নেতা বলেন, কেন্দ্রীয় কমিটি নিয়ে ছাত্রদলের তৃণমূলে অনেক অসন্তোষ রয়েছে। কারণ যারা ইউনিট কমিটিতে পদ পাওয়ার যোগ্য না তারা কেন্দ্রীয় কমিটি পদ পেয়েছেন। এমন নেতার সংখ্যা প্রায় ১০০ থেকে ১৫০ জন হবে। আর প্রায় ৪০ থেকে ৫০ জন বিবাহিত নেতাও কমিটিতে পদ পেয়েছেন।

তবে কমিটি ঘোষণার পর এসব বিষয় আর প্রাধান্য দেয়া হবে না। কারণ কমিটি গঠনের লক্ষ্যে গত ২৪ আগস্ট একটি বিশেষ বিজ্ঞপ্তি দিয়েছিল কেন্দ্রীয় ছাত্রদল। সেখানে বলা হয়েছে, কেন্দ্রীয় ছাত্রদলে প্রতিনিধিত্ব করতে আগ্রহী নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে আহবান বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী ছাত্রদল কেন্দ্রীয় সংসদের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, কেন্দ্রীয় সংসদের পূর্ণাঙ্গ কমিটি দ্রুত গঠনের লক্ষ্যে কেন্দ্রীয় সংসদে প্রতিনিধিত্ব করতে আগ্রহী (পদ প্রত্যাশী) কারো সম্পর্কে কেন্দ্রীয় সংসদ কর্তৃক ঘোষিত ক্রাইটেরিয়া বহির্ভূত কোনো অভিযোগ থাকলে কেন্দ্রীয় সংসদকে অবগত করার জন্য নির্দেশ দেয়া যাচ্ছে।

এই অভিযোগ গত ৩০ আগস্টের মধ্যে কেন্দ্রীয় দফতরে কিংবা কেন্দ্রীয় সংসদ কার্যালয়ে অভিযোগ ও অভিযোগের সুনির্দিষ্ট তথ্যপ্রমাণসহ জমা দেয়ার জন্য আহবান জানানো হয়। ঘোষিত এই তারিখের পর আর কোন অভিযোগ কেন্দ্রীয় সংসদের কাছে গ্রহণযোগ্য বলে বিবেচিত হবে না বলেও সুস্পষ্টভাবে জানিয়ে দেয়া হয়েছিল।

এরপরও কেউ যদি সুনির্দিষ্টভাবে কেন্দ্রীয় কমিটির কোনো নেতার বিরুদ্ধে প্রমাণসহ অভিযোগ দেয়- সেই নেতার বিরুদ্ধে তাৎক্ষণিক সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানিয়েছেন ছাত্রদলের সভাপতি কাজী রওনাকুল ইসলাম শ্রাবণ।

এ বিষয়ে কাজী রওনাকুল ইসলাম শ্রাবণ বলেন, এসব অভিযোগের বিষয়ে জানতে কমিটি গঠনের আগে (গত ৩০ আগস্ট) বিশেষ বিজ্ঞপ্তি দেয়া হয়েছিল। কিন্তু এরপরও কারো বিরুদ্ধে সুনির্দিষ্ট অভিযোগ থাকলে অবশ্যই তাকে বাদ দেয়া যাবে।

গত ১৭ এপ্রিল কাজী রওনাকুল ইসলাম শ্রাবণকে সভাপতি এবং সাইফ মোহাম্মদ জুয়েলকে সাধারণ সম্পাদক করে ৫ সদস্য বিশিষ্ট কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের নতুন আংশিক কমিটি ঘোষণা করা হয়। এরপর প্রায় পাঁচ মাসের মধ্যে (১১ সেপ্টেম্বর) ৩০২ সদস্য বিশিষ্ট ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় কমিটি ঘোষণা করা হয়।

কমিটি ঘোষণার পর পরই ছাত্রদলের পদবঞ্চিত ৩০ থেকে ৪০ জন নেতাকর্মী রাজধানীর নয়াপল্টন বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে বিক্ষোভ মিছিল করেন। এ সময় তারা বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে আগুন জ্বালিয়ে বিক্ষোভ করেন এবং নতুন ঘোষিত কেন্দ্রীয় কমিটির প্রতি অনাস্থা জানান।

এদিকে কেন্দ্রীয় কমিটি থেকে ছাত্রদলের যেসব যোগ্য এবং ত্যাগী নেতা বাদ পড়েছেন তাদের মধ্যে উল্লেখযোগ্য- মো. সিরাজুল ইসলাম, কে এম সাখাওয়াত হোসেন, রাফিজুল হাই রাফিজ, আবুল হাসান চৌধুরী এবং মো. ইবরাহীম খলিল।

এর মধ্যে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রদল নেতা সিরাজুল ইসলাম সিরাজ ২০১৩ সালে ২৫ জুলাই বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে নিয়ে কটূক্তি করার প্রতিবাদে কর্মীদের নিয়ে বিক্ষোভ মিছিল করেন। ওই মিছিলে তার পেটে অস্ত্র ঠেকিয়ে গুলি করে পুলিশ। তখন তিনি ৫ দিন লাইফ সাপোর্ট এবং ৮ দিন আইসিইউতে ছিলেন।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের এক শীর্ষ নেতা বলেন, দলের কিছু পলিসি থাকে। হয়তো তাদেরকে (যোগ্য ও ত্যাগী) দলের অন্য কোনো সংগঠনে পদ দিবেন, সেজন্য তাদেরকে ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় কমিটিতে রাখা হয়নি।

জানতে চাইলে কাজী রওনাকুল ইসলাম শ্রাবণ বলেন, সব পক্ষ এবং গ্রুপের সঙ্গে সমন্বয় করেই আমরা কমিটি দিয়েছি। এরপরও যদি কারো বিরুদ্ধে কোন অভিযোগ থাকে তাহলে সেটা আমাদের কাছে সুনির্দিষ্টভাবে জানালে আমরা অবশ্যই তাকে পদ থেকে বাদ দেবো।

কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক সাইফ মাহমুদ জুয়েল বলেন, প্রতিটি কমিটি গঠনের পর বিচ্ছিন্ন কিছু অভিযোগ থাকে। আর কমিটি গঠনের আগে আমরা সবাইকে ডেকে বলেছি এবং বিবৃতি দিয়েও বলেছি যে, কারো বিরুদ্ধে কোন অভিযোগ থাকলে আমাদেরকে বলেন। আমরা তাকে কমিটিতে রাখবো না। কিন্তু একটা শ্রেণি আছে, যারা এ ধরনের অভিযোগ করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আরও দেখুন

সমাজসেবার আড়ালে যৌনতেষ্টা মেটাচ্ছেন বহুগামী সোনিয়া

Share this… Facebook 0 Twitter Telegram Linkedin নিউজ ডেস্ক: সোনিয়া আক্তার স্মৃতি। সমাজসেবার আড়ালে মিটিয়ে নিচ্ছেন নিজের যৌনতেষ্টা। বিএনপির রাজনীতিতে সক্রিয় হওয়ায় তার শয্যাসঙ্গী বেশিরভাগই দলটির নেতারা। তবে যে পুরুষ তাকে তুষ্ট করতে পারে না তার সঙ্গে দ্বিতীয়বার বিছানায় যান না সোনিয়া। তাই ছাত্রদলের সভাপতি রওনক হাসান শ্রাবণের সঙ্গে সম্পর্ক ভেঙ্গে যায় সোনিয়ার। কারণ শ্রাবণ […]

বিস্তারিত

খুনি জিয়ার পাপাচার ও পাকিস্তানপ্রীতি

Share this… Facebook 0 Twitter Telegram Linkedin নিউজ ডেস্ক: পঁচাত্তরের ১৫ আগস্টে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু হত্যার পেছনে দায়ী জিয়াউর রহমান এক সময় প্রেসিডেন্ট সায়েমকে জোরপূর্বক ক্ষমতা থেকে সরিয়ে রাষ্ট্রীয় ক্ষমতা দখল করে। এরপর ক্ষমতায় বসে জিয়াউর রহমান তার আসল চরিত্রের বহিঃপ্রকাশ ঘটায়। বঙ্গবন্ধু হত্যাপরিকল্পনার কথা জানা থাকা সত্ত্বেও বঙ্গবন্ধুর খুনিদের বাধা দেয়া তো দূরের কথা […]

বিস্তারিত

উত্তপ্ত রাজনীতিতে নিষ্প্রভ নুরের দল

Share this… Facebook 0 Twitter Telegram Linkedin ২০২১ সালের ২৬ অক্টোবর বেশ ঢাকঢোল পিটিয়ে নতুন রাজনৈতিক দল ‘গণঅধিকার পরিষদ’ গঠন করেছিলেন ডাকসুর সাবেক ভিপি নুরুল হক নুর। গণঅধিকার পরিষদ গঠনের পর রাজনীতিতে নানা চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছিল। অনেকেই মনে করেছিলেন, এই দল নতুন ধারার সূচনা করবে। কিন্তু এক বছর যেতে না যেতেই প্রায় হারিয়ে গেছে নুরের […]

বিস্তারিত