তারেকের বিশ্বস্ত সহযোগী হিযবুত তাহরীর‌‌‌‌’র শীর্ষ নেতা গ্রেপ্তার

নিউজ ডেস্ক : বিএনপির পলাতক ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের বিশ্বস্ত সহযোহী এবং নিষিদ্ধ সংগঠন হিযবুত তাহরীর’র শীর্ষ নেতা তৌহিদুর রহমান ১১ বছর ধরে পলাতক থাকার পর গ্রেপ্তার হয়েছে র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব) এর হাতে। শুক্রবার রাজধানীর যাত্রাবাড়ী এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা জানায়, লন্ডনে পলাতক তারেক রহমানের পরামর্শেই ছদ্মবেশে আওয়ামী লীগ সরকারের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রমূলক কর্মকাণ্ডে লিপ্ত ছিলেন জঙ্গি তৌহিদুর রহমান। টেলিগ্রামে তারেকের সাথে যোগাযোগের তথ্য প্রমাণও পাওয়া গেছে।

রোববার র‍্যাব এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলেছে, গ্রেপ্তার ব্যক্তি বিভিন্ন ছদ্মবেশ ধারণ করে আত্মগোপনে থেকে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর নজর এড়িয়ে জঙ্গি তৎপরতা চালাচ্ছিলেন। তিনি সংগঠনের দাওয়াতি ও অর্থ বিভাগের অন্যতম দায়িত্বপ্রাপ্ত ছিলেন।

র‍্যাব বলছে, তৌহিদুর মাদ্রাসা ও স্কুলের তরুণ প্রজন্মকে জঙ্গিবাদে উৎসাহিত করতেন। তিনি গণতন্ত্রকে ভাইরাস আখ্যা দিয়ে খিলাফত প্রতিষ্ঠার কাজ করতেন।

র‍্যাব আরও বলছে, গ্রেপ্তার ব্যক্তি সরকারের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রমূলক বৈঠক করে হিযবুত তাহরীরের লিফলেট, পোস্টার বিতরণের মাধ্যমে সরকার এবং রাষ্ট্রবিরোধী কার্যক্রমে জড়িত ছিলেন।

র‍্যাব-২–এর সহকারী পরিচালক (গণমাধ্যম) মো. ফজলুল হক বলেন, তৌহিদুর ঢাকার হাজারীবাগ থানায় সন্ত্রাসবিরোধী আইনে করা মামলার আসামি। ওই মামলায় তাঁর বিরুদ্ধে পুলিশ অভিযোগপত্র দিয়েছিল। তিনি বলেন, হাজারীবাগ থানার মামলায় সন্ত্রাসবিরোধী ট্রাইব্যুনালে তৌহিদুরকে দুই বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়। তার বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেছেন আদালত।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *